বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ০৯:২১ পূর্বাহ্ন

কাঠালিয়ায় দুই প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংর্ঘষে নিহত-১, আহত-১৫, আটক-৩

কাঠালিয়ায় দুই প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংর্ঘষে নিহত-১, আহত-১৫, আটক-৩

বার্তা ডেস্ক:

ঝালকাঠির কাঠালিয়ায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতায় দুই মেম্বর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংর্ঘষের ঘটনা ঘটেছে।

এতে আরিফ হোসেন(২২) নামের এক কলেজ ছাত্র নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে অনন্ত: ১৫ জন।

ঘটনার পর পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৩জনকে আটক করেছে। নিহত আরিফ হোসেন উপজেলার ছোনউটা গ্রামের শিক্ষক শাহ আলম আকন লাল মিয়ার পুত্র। এবং বাগেরহাট সরকারি পিসি কলেজের অর্নাস ৩য় বর্ষে ছাত্র।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, মঙ্গলবার (২২জুন) সন্ধ্যা রাতে স্থানীয় ছোনাউটা কেরাত আলী দাখিল মাদ্রাসার বাজার সংলগ্ন পিকনিকের আয়োজন করে উপজেলার আমুয়া ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের সদ্য নির্বাচিত ইউপি সদস্য (মেম্বর) মজিবর রহমানের সমর্থকরা। এ সময় পরাজিত মেম্বর প্রার্থী ফারুক মিয়ার কর্মী আলী হোসেন রাস্তা দিয়ে হেটে যাবার সময় মজিবর রহমানের সমর্থকরা আটকে বেঁধে রাখে।

এ খবর পেয়ে ফরুকের লোকজন আটক আলী হোসেনকে ছাড়াতে আসলে উভয়ের মধ্যে সংর্ঘষ বাঁধে এবং এলাকা রণক্ষেত্রে পরিনত হয়। সংর্ঘষে রামদা ও দা এর কোপ ও লাঠির আঘাতে উভয় পক্ষের অন্ততঃ ১৫জন আহত হয়।

এদের মধ্যে গুরুতর আহত আরিফ হোসেন(২২), আঃ মালেক (৬০), আলিম সিকদার(৬০), সরিফুল ইসলাম(২৬), ইব্রাহীম আকন(২৫), শাহ আলম আকন(৬০), শাহনাজ পারভীন (৫০), ও সোহরাফ হোসেন আকনকে(৫৫)।

এদের মধ্যে কলেজ ছাত্র আরিফ হোসেন ও আলিম সিকদারকে আশংকাজনক অবস্থায় বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত তিনটার দিকে কলেজ ছাত্র আরিফ হোসেন মারা যায়।

কাঠালিয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পুলক চন্দ্র রায় জানান, নির্বাচন পরবতী দুই মেম্বর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংর্ঘষে কলেজ আরিফ হোসেন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তিনজনকে আটক করা হয়েছে। লাশ বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেলে ময়না তদন্ত সম্পন্ন করা হবে। নিহত আরিফের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

২১ জনু এ উপজেলায় ইউপি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

 

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন







All rights reserved@KathaliaBarta-2021
Design By Rana