শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১০:৩৫ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কাঠালিয়ায় ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি রাষ্ট্রপতির সঙ্গে আইজিপি বেনজীরের বিদায়ী সাক্ষাৎ কাঠালিয়ায় ভাতিজার লাঠির আঘাতে চাচা গুরুতর আহত বরিশাল বিভাগীয় সরকারি গণগ্রন্থাগারের পুরস্কার পেলেন কবি হেলেন রহমান কিডনী রোগীর চিকিৎসায় ও মাদ্রাসা স্থাপনে আর্থিক সহায়তা প্রদান প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে অসহায়দের দ্বারে মানবিক খাবারের গাড়ি কাঠালিয়ায় নানা আয়োজনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন পালিত কাঠালিয়া উপজেলা সামাজিক-সম্প্রীতি কমিটির সভা কাঠালিয়ায় খাল ও প্রাতিষ্ঠানিক জলাশয়ে পোনা মাছ অবমুক্তকরণ কাঠালিয়ায় মটর সাইকেল দূর্ঘটনায় দাখিল পরীক্ষার্থী নিহত, আহত-১
ঝালকাঠিতে ছেলেকে খুনের অভিযোগ মিথ্যা দাবি করলেন বাবা

ঝালকাঠিতে ছেলেকে খুনের অভিযোগ মিথ্যা দাবি করলেন বাবা

ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ

রাজাপুর উপজেলার কানুদাসকাঠি গ্রামে নিজ পুত্র সন্তানকে ভাড়াটে খুনি দিয়ে হত্যা করার অভিযোগ সত্য নয় বলে দাবি করেছেন বাবা অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক আমির হোসেন। মঙ্গলবার দুপুরে ঝালকাঠি প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মলেনে তিনি এ দাবি করেন। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন নিহত আল আমিনের মা জয়নব বিবি, ভাই নিরু হাওলাদার ও নিকটাত্মীয় ইদ্রিস মোল্লা।

গত ৫ অক্টোবর ওবায়দুল হক নামে এক ব্যক্তি ঝালকাঠি প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে আল আমিন হত্যার দায়ে বাবা আমির হোসেনের বিচার দাবি করেন। ওই সংবাদ সম্মেলনের জবাব দিতে মঙ্গলবার পাল্টা সংবাদ সম্মেলন করেন আমির হোসেন।

আমির হোসেন লিখিত বক্তব্যে দাবি করেন, ওবায়দুল হকদের সঙ্গে পূর্ব থেকেই জমি জমা নিয়ে বিরোধ রয়েছে তাদের। ছেলে আল-আমিন খুন হওয়ার পরে বিপুল পরিমান অর্থ খরচ করে মামলায় আমার নাম অর্šÍভুক্ত করতে প্রতিপক্ষরা সক্ষম হয়। সংবাদ সম্মেলনে আমির হোসেন ছেলে হত্যার সুষ্ঠু বিচার এবং প্রতারক ওবায়দুল হকেরও শাস্তি দাবি করেন।

মামলার নথিপত্র ও নিহতের স্বজনদের সূত্রে জানা যায়, সিরাজুল ইসলাম ওরফে আল আমিন (২০) গত ৩ জুলাই ২০০৯ তারিখে খুন হয়। এ ঘটনায় আল আমিনের বাবা আমির হোসেন বাদী হয়ে রাজাপুর থানায় পরেরদিন একই এলাকার হারুন অর রশিদ ও মন্টুসহ কয়েকজনকে অজ্ঞাতনামা আসামি করে মামলা দায়ের করেন। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা রাজাপুর থানার এসআই মিজানুর রহমান, নিহত আল আমিনের মোবাইল ফোনের সূত্র ধরে মোজাম্মেল হোসেন নামে একজনকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত মোজাম্মেল আদালতে স্বাীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী প্রদান করে। জবানবন্দীর ওপর ভিত্তি করে তদন্ত কর্মকর্তা নিহত আল-আমিনের বাবাসহ ৭ জনের নামে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। মামলাটি বর্তমানে ঝালকাঠির অতিরিক্ত জেলা দায়রা জজ আদালতে যুক্তি তর্ক উপস্থাপনের পর্যায় রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন







All rights reserved@KathaliaBarta-2021
Design By Rana