বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:২৮ অপরাহ্ন

এবার চীনে বন্যা, সরিয়ে নেওয়া হয়েছে ১০ হাজারের বেশি মানুষকে

এবার চীনে বন্যা, সরিয়ে নেওয়া হয়েছে ১০ হাজারের বেশি মানুষকে

ভারী বৃষ্টিপাতের কারণে চীনের মধ্যাঞ্চলের বেশ কিছু অঞ্চল ভয়াবহ বন্যায় প্লাবিত হয়েছে। ডুবে গেছে রেল স্টেশনসহ রাস্তাঘাট। বন্যার কারণে এরই মধ্যে ১০ হাজারের বেশি মানুষকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, চীনের মধ্যাঞ্চলের হেনান প্রদেশে ভারী বৃষ্টিপাতের কারণে ভয়াবহ বন্যার সৃষ্টি হয়েছে। প্রদেশটির ঝেংঝু শহরে গত তিন দিনে যে পরিমাণ বৃষ্টিপাত হয়েছে, তা সাধারণত পুরো বছরে হয়। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে এরই মধ্যে ১০ হাজারের বেশি মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। এখন পর্যন্ত ঝেংঝু শহরে অন্তত একজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। নিখোঁজ রয়েছে আরও অনেকে।

ঝেংঝু শহরের পাতাল রেল ব্যবস্থা বন্যার পানিতে ডুবে যাওয়ার দরুণ এ মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। বন্যায় প্রদেশটির এক ডজনের বেশি শহর আক্রান্ত হয়েছে।

চীনের হেনান প্রদেশে ৯ কোটি ৪০ লাখ মানুষের বাস। ভারী বর্ষণের কারণে প্রদেশটিতে এরই মধ্যে সর্বোচ্চ মাত্রার আবহাওয়া সতর্কতা জারি করা হয়েছে।

এমন হঠাৎ বন্যার পেছনে বেশ কিছু কারণ কাজ করছে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা। তবে সবচেয়ে বড় কারণ হিসেবে রয়েছে উষ্ণায়ন। বৈশ্বিক উষ্ণায়নের কারনে সৃষ্ট জলবায়ু পরিবর্তনজনিত কারণেই এমন অস্বাভাবিক আবহাওয়া দেখা দিয়েছে। অন্য বছরের তুলনায় বেশি বৃষ্টিপাত হচ্ছে। আর এতেই এত প্রবল বন্যার মুখে পড়েছে প্রদেশটি।

হেনান প্রদেশের দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে নানা ধরনের সংখট সৃষ্টি হয়েছে। এরই মধ্যে রাস্তাঘাট অচল হয়ে পড়েছে। বন্ধ রয়েছে যাবতীয় ফ্লাইট। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া বিভিন্ন ছবি ও ভিডিওতে রাস্তা ডুবে যাওয়া শুধু নয়, বন্যার পানির তোড় রাস্তায় থাকা গাড়িও ভাসিয়ে নিয়ে যেতে দেখা গেছে।

এদিকে বন্যার কারণে হেনান প্রদেশে থাকা একটি বাঁধ ধসে পড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। কিচুদিন আগে ঝড়ের কারণে এমনিতেই বাঁধটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল। এবার বন্যার ধাক্কা তা সামলাতে পারবে কি না তা নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়। এরই মধ্যে বাঁধটির ২০ মিটার জায়গাজুড়ে ফাটল দেখা দিয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় কর্মকর্তারা। এরই মধ্যে বাঁধ রক্ষায় সেখানে সেনা মোতায়েন করা হয়েছে।

ঝেঁঝু শহরের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। এতে পাতাল রেলে আটকে পড়া কিছু যাত্রীকে দেখা যাচ্ছে, যাদের কাঁধ পর্যন্ত পানিতে ডুবে গেছে। কিছু মানুষ তাদের উদ্ধারের চেষ্টা করছে। তবে ভিডিওটি এবারের বন্যারই কি না, সে বিষয়ে বিবিসি নিশ্চিত করতে পারেনি।

 

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন







All rights reserved@KathaliaBarta-2021
Design By Rana